রূহানী চার্চের উদ্যোগে মনিরামপুরে কম্বল বিতরণ

কেশবপুর নিউজ ডেস্ক ||

রূহানী চার্চ বাংলাদেশ ট্রাস্টের পরিচালক বিশিষ্ট সাংবাদিক আব্দুর রহিম রানা বলেছেন, তীব্র শৈত্য প্রবাহে যশোর অঞ্চলের খেটে খাওয়া মানুষের নাভিশ্বাস উঠেছে। এ অবস্থায় মানুষকে বাঁচাতে জাতি-ধর্ম-নির্বিশেষে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। যার যেটুকু সামর্থ্য আছে তাই নিয়ে শীতার্ত মানুষের সাহায্যে এগিয়ে আসতে হবে।

গত সোমবার বিকেলে মনিরামপুরের মনোহরপুর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে দাতা সংস্থা লাইট ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সহযোগীতায় রূহানী চার্চ বাংলাদেশ ট্রাস্ট আয়োজিত শীতার্ত হতদরিদ্র ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মাঝে কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন। ট্রাস্টের মহিলা ও শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা সেলিনা খাতুন নয়মীর সঞ্চালনায় অন্যান্যের মধ্যে ইউপি সদস্য সিরাজুল ইসলাম ফকির,  আকাশ মল্লিক, রূহানী চার্চের  যুব বিষয়ক কো-অর্ডিনেটর রফিকুল ইসলাম নয়ন, সাথী মল্লিক,  সুমা রায়, সুমি খাতুনসহ রূহানী  চার্চ বাংলাদেশ ট্রাস্টের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।  এ সময় মনোহরপুর ও খাকুন্দি গ্রামের ৫০ জন শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়। এর আগে রোববার সকালে দুর্বাডাঙ্গা ইউনিয়নের পাড়ালা রূহানী চার্চ মিশন স্কুল চত্বরে ২৫ জন শীতার্ত মানুষকে কম্বল প্রদান করা হয়।

You May Also Like